শিওর ক্যাশ একাউন্ট খোলার নিয়ম

রূপালী, যমুনা এবং ফার্স্ট সিকিউরিটি মোবাইল ব্যাংকিং পরিষেবার লাইসেন্স পেয়েছে, প্রগতি সিস্টেম তাদের পক্ষ হয়ে পরিষেবাটি পরিচালনা করছে। এর মধ্যে রূপালী ব্যাংক ‘রূপালী ব্যাংক শিওরক্যাশ’ নামে পরিষেবা প্রদান করছে। এবং অন্যরা শিওরক্যাশ একাউন্ট (Sure Cash Account) নামে পরিষেবা প্রদান করছে। শিওরক্যাশ মূলত প্রগতি সিস্টেমের মোবাইল ব্যাংকিং পরিষেবাদির ব্র্যান্ড নাম। প্রগতি সিস্টেমগুলি মোবাইল ব্যাংকিং পরিষেবাদির প্রযুক্তি, পরিবেশক, এজেন্ট এবং ব্যবসায়িক বিকাশ পরিচালনা করে। পনার শিওরক্যাশ একাউন্ট থেকে মোবাইলের রিচার্জ থেকে শুরু করে বিভিন্ন খাতে টাকা পাঠাতে পারবেন খুব সহজেই এবং কোন ঝামেলা ছাড়াই।

শিওর ক্যাশ একাউন্ট খোলার নিয়ম

শিওর ক্যাশ একাউন্ট খোলার নিয়ম

 

শিওর ক্যাশঃ আপনি যদি শিওর ক্যাস একাউন্ট খলতে চান তাহলে, সেটে খুলতে পারবেন খুব সহজে। আপনার নিজের একাউন্ট নিজেই খুলতে পাবেন একদম ফ্রিতে। শিওর ক্যাশ একাউন্ট খুলতে প্রথমে আপনাকে প্লে-স্টোর বা অ্যাপ স্টোর থেকে ডাউনলোড করুন শিওরক্যাশ অ্যাপ। তারপর

সহজ কয়েকটি ধাপে ই-কেওয়াইসির মাধ্যমে রূপালী ব্যাংক শিওরক্যাশের একাউন্ট রেজিস্ট্রেশন করে শিওর ক্যাশ একাউন্ট সম্পূর্ণ করুন। শিওর ক্যাশ খুলতে কিছু কাগজ পত্র প্রয়োজন সেগুলো হল, আপনার জাতীয় পরিচয়পত্র, আপনার নির্ধারিত কিছু তথ্য, আপনার এক কপি পাসপোর্ট সাইজের ছবি, এবং পিন সেট করুন তার পর হয়ে গেল আপনার শিওর ক্যাশ। এছাড়া আপনার ভোটার আইডি কার্ডের ফটোকপি ও ২ কপি পাসপোর্ট সাইজের ছবি নিয়ে আপনার নিকটস্থ কোন অনুমোদিত শিওরক্যাশ এজেন্টের কাছে গিয়েও শিওরক্যাশ মোবাইল ব্যাংকিং একাউন্ট খুলতে পারেন। বর্তমান শিওর ক্যাশ একাউন্ট চেক কোড হল *৪৯৫#
আপনার যে কোন সমস্যায় শিওর ক্যাশ হেল্পলাইন নাম্বার এ কল করুনঃ
সর্বদা আপনাকে সর্বোত্তম সেবা দেওয়ার চেষ্টা কতে থাকে এই কোম্পানিটি। আপনি কোন সমস্যাতে পড়লে হটলাইনে কল করতে পারেন। শিওর ক্যাশ হেল্পলাইন নাম্বার ০৯৬১৪০১৬৪৯৫ 
শিওর ক্যাশ একাউন্ট থেকে কী কী সেবা পাওয়া যায়ঃ
একজন শিওর ক্যাশ একাউন্ট হোল্ডার তার শিওর ক্যাশ একাউন্টে পর্যাপ্ত টাকা থাকলে যেকোন সময় যেকোন জায়গা থেকেই শিওর ক্যাশ এর বিভিন্ন সেবা উপভোগ করতে পারেন। এক সময় শুধুমাত্র শিওর ক্যাশ নির্ধারিত এজেন্ট থেকে শিওর ক্যাশ একাউন্ট খুলতে হতো। কিন্তু বর্তমানে নিজে নিজে শিওর ক্যাশ একাউন্ট খোলা যায়।
শিওর ক্যাশ এর বর্তমান সেবাগুলো হচ্ছেঃ
একাউন্টে টাকা জমা করা।
একটি শিওর ক্যাশ একাউন্ট থেকে আরেকটি শিওর ক্যাশ একাউন্টে টাকা পাঠানো।
একাউন্ট থেকে এজেন্ট অথবা এটিএম থেকে টাকা তোলা।
পণ্য কেনাকাটা বা সেবার বিনিময়ে মূল্য পরিশোধ করা।
বিদ্যুৎ বিল প্রদান করা।
বেতন প্রদান।
ঘরে বসে যানবাহনের টিকিট কেনা।
ইন্টারনেটে কেনাকাটা ইত্যাদি সুবিধা পাবেন।

শিওর ক্যাশ একাউন্ট দেখার নিয়ম, শিওর ক্যাশ একাউন্ট কোড, শিওর ক্যাশ একাউন্ট খোলা, অনলাইনে শিওর ক্যাশ একাউন্ট খোলার নিয়ম, শিওর ক্যাশ একাউন্ট খোলার নিয়ম, শিওর ক্যাশ এজেন্ট একাউন্ট খোলার নিয়ম, শিওর ক্যাশ একাউন্ট কিভাবে খুলবো, শিওর ক্যাশ একাউন্ট চেক কোড, শিওর ক্যাশ একাউন্ট কিভাবে খুলবো, শিওর ক্যাশ একাউন্ট খোলা, শিওর ক্যাশ এর বর্তমান সেবা ,

Leave a Comment