সকল সিমে কনফারেন্স কল করার নিয়ম জেনে নিন।

আপনি যদি মোবাইল ফোন ব্যবহার করে থাকেন তাহলে আপনার অবশ্যই কনফারেন্স কল ( Conference Call )  শব্দটি শুনে থাকবেন। সিমে কনফারেন্স কল এমন যার মাধ্যমে আপনি একবারে অনেক কল করতে পারেন এবং সবার সাথে একবারে যোগাযোগ করতে পারেন। একজন সম্মানিত রবি , বাংলালিংক(BL), গ্রামীনফোন (GP), এয়ারটেল গ্রাহক হিসেবে আপনি সকল কল কনফারেন্সিং’ এর সাহায্যে একই সময়ে ৫জনের সঙ্গে কথা বলতে পারবেন। আপনি যদি কনফারেন্স কলিং এর নিয়ম না জানেন তাহলে নিম্নে দেওয়া তথ্য গুলি আপনার জন্য। আজ জানবেন কিভাবে কনফারেন্স কল করতে হয় সে সম্পর্কে। আপনারা এর মাধ্যমে আপনি সকল যেকোন মোবাইল বা সিমে সহজেই কল কনফারেন্স করতে পারবেন।

সিমে কনফারেন্স কল করার নিয়ম

সিমে কনফারেন্স কল করার নিয়ম

কনফারেন্স কল মানে একসাথে একাধিক কল করা। যেখানে প্রথমে আপনি যেকোন নম্বরে কল করতে পারেন। এবং তারপরে আপনি সেই নম্বরটি হোল্ডে রাখতে পারেন এবং অন্য নম্বর বা অন্য ব্যক্তিকে কল করতে পারেন। এছাড়া যখন সমস্ত কল করা হয়, প্রতিটি কল একসাথে একত্রিত করে, সবাই মোবাইলের সাহায্যে একসাথে যোগাযোগ করতে সক্ষম হবে, আর এই ব্যবস্থাকে বলা হয় কনফারেন্স কল।

কনফারেন্সের নিয়মঃ

১মধাপঃ একটি কল করুন।

২য়ধাপঃ প্রথম কলটি চালু অবস্থায় দ্বিতীয় নম্বরে ডায়াল করুন।

৩য়ধাপঃ দ্বিতীয় নম্বরে সংযোগ পাওয়ার পর আপনার হ্যান্ডসেটের ‘অপশন’ বাটনচাপুন, ‘কনফারেন্স’ চিহ্নিতকরুনএবং ’সিলেক্ট ’ চাপুন। আপনি উভয় নম্বরেই একই সাথে কথা বলতে পারবেন।

৪র্থধাপঃ আপনার কনফারেন্স কলে অতিরিক্ত নম্বর যোগ করার জন্য ২য় ও ৩য় ধাপ। ‘কল কনফারেন্সিং’ এর আওতায় সর্বোচ্চ ৬জন গ্রাহক (নিজে সহ) একই সময়ে কথা বলতে পারবেন।

কনফারেন্স কল চার্জ বা খরচঃ

  • কল কনফারেন্সিং এর জন্য চার্জ হবে সংশ্লিষ্ট স্বাভাবিক ভয়েস কলের হার অনুযায়ী।
  • যতগুলো নম্বরে কল করা হবে প্রত্যেকটির জন্য চার্জ হবে।
  • আরো বিস্তারিত জানতে কোম্পানির নম্বরে যোগাযোগ করুন।

 

কনফারেন্স কল করার নিয়ম, কনফারেন্স কল কিভাবে করতে হয়, কনফারেন্স কল কিভাবে করে, conference call, conference a call, কনফারেন্স কি, কল কনফারেন্স করার নিয়ম, সকল সিমে কনফারেন্স কল করার নিয়ম

Leave a Comment